কৃষি বিল প্রত্যাহারের দাবিতে অবস্থান বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ সভা তৃণমূল কংগ্রেসের




 রুপম দাস,হাওড়া: 


 কেন্দ্রীয় সরকারের কৃষি বিল প্রত্যাহারের দাবিতে তৃণমূল কংগ্রেসের উদ্যোগে রবিবার আমতা ও উদয়নারায়ণপুরে দুটি প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে উদয়নারায়নপুর কেন্দ্রের বিধায়ক সমীর কুমার পাঁজা তীব্র ভাষায় কেন্দ্রীয় সরকারের সমালোচনা করেন। তিনি বলেন বর্তমান বিজেপি পরিচালিত কেন্দ্রীয় সরকার কৃষকদের গলা টিপে মারতে চাইছে। তারা অসংসদীয় ভাবে জনবিরোধী কৃষি বিল পাস করিয়েছে। এই বিল প্রত্যাহারের দাবিতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে সারা বাংলা জুড়ে তৃণমূল কংগ্রেস প্রতিবাদ কর্মসূচিতে শামিল হয়েছে। তারই অঙ্গ হিসাবে রবিবার আমতা বাস স্ট্যান্ড ও উদয়নারায়ণপুর কেন্দ্রের কাদুয়ায় দুটি প্রতিবাদ সভা করা হয়। সমীরবাবু বলেন ব্রিটিশ শাসনের সময় যেমন কৃষকদের দিয়ে জোর করে নীল চাষ করানো হতো বর্তমান কেন্দ্রীয় সরকার সেই পথে হেঁটে নতুন বিলের মাধ্যমে কৃষকদের দিয়ে তাদের পছন্দমতো চাষ করাতে বাধ্য করতে চাইছে। তারা কৃষকদের গলা টিপে মারতে চাইছে। পশ্চিমবঙ্গ পর পর সবার কৃষিতে প্রথম হয়েছে। কেন্দ্রের এই ষড়যন্ত্র তৃণমূল কংগ্রেস মেনে নেবে না। এদিন কাদুয়ার সভায় বিভিন্ন রাজনৈতিক দল থেকে প্রায় ৩০০ জন সদস্য তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান করেন। এদিন কেন্দ্রীয় সরকারের কৃষি নীতির বিরুদ্ধে আমতা বাস স্ট্যান্ডের জনসভায় সমীর কুমার পাঁজা ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন হাওড়া জেলা পরিষদের সহ-সভাধিপতি অজয় ভট্টাচার্য, কর্মাধ্যক্ষ রমেশ পাল, কিষাণ ক্ষেতমজুর তৃণমূল কংগ্রেসের হাওড়া জেলা সভাপতি তথা উলুবেড়িয়া উত্তর কেন্দ্র তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি তপন চক্রবর্তী, আমতা-১ পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি ধনঞ্জয় বাকুলি প্রমুখ। অসুস্থতার কারণে ডাঃ নির্মল মাজি এই সভায় উপস্থিত থাকতে পারেননি। সভায় বক্তারা তীব্র ভাষায় কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে বিষোদগার করেন। এদিন উদয়নারায়ণপুর বিধানসভা কেন্দ্রের কাদুয়ায় এক বিশাল সমাবেশে বিধায়ক সমীর কুমার পাঁজা ছাড়াও হাওড়া জেলা পরিষদের পূর্ত দপ্তরের কর্মাধ্যক্ষ সীতানাথ ঘোষ, উদয়নারায়ণপুর কেন্দ্র তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি দীপঙ্কর দাস প্রমুখ তীব্র ভাষায় কেন্দ্রীয় সরকারের সমালোচনা করেন।


0/Post a Comment/Comments