সিরাতের জেলা কমিটির গুরুত্বপূর্ণ মিটিং অনুষ্ঠিত হয় বসিরহাটে।




সিরাত সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার অ্যান্ড এডুকেশন ট্রাস্টের উত্তর 24 পরগনা জেলা কমিটির প্রথম মিটিং অনুষ্ঠিত হয় জেলা অফিসে।
অদ্যকার মিটিং, জেলা কমিটির সভাপতি  বিশিষ্ট শিক্ষক জনাব মাসুদুর রহমান সাহেবের সভাপতিত্বে শুরু হয়। তিনি পবিত্র  মহান আল্লাহর প্রশংসা জ্ঞাপন করে মিটিং পরিচালনার কাজ শুরু করেন এবং আলোচ্য বিষয়গুলির প্রতি আলোকপাত করতে গিয়ে  বলেন যে, সংগঠনের সফলতা তো আছেই তবুও বেশি বেশি করে ব্যর্থতার খতিয়ান গুলো দেখে সেই গুলো রিকোভার করা  জরুরী। বিশেষ করে আমাদের ভালো policy-makers হতে হবে এবং 2021 সালে গোটা এক বছরে প্রতিটি ব্লক ভিত্তিক একটি করে কমিটি গঠন করা দরকার সাংগঠনিক কর্মকাণ্ড তাদের সামনে উপস্থাপন করে তাদেরকে উদ্বুদ্ধ করা দরকার। এছাড়া শিক্ষক দিবস উদযাপন অনুষ্ঠান আগামী ৫ ই সেপ্টেম্বর বেলা ১১ টায় অনুষ্ঠিত হোক এই আলি মার্কেটের কমিউনিটি হলে। 



তাঁর এই গঠনমুলক প্রস্তাবকে উপস্থিত সকলে সমর্থন করেন। সংগঠনের জেলা কমিটির সহ-সম্পাদক শিক্ষক মুস্তাকিম মন্ডল বলেন, নতুন জেলা কমিটির বয়স মাত্র ১০ দিন,এই কমিটিকে আরো বেশি করে মজবুত করতে হবে এবং সক্রীয় কর্মী বাড়াতে হবে। সদস্য সংগ্রহ করে সিরাতের কর্মকাণ্ডকে বিভিন্ন এলাকায় তুলে ধরার জন্য নানাবিধ অনুষ্ঠান বা কর্মসূচি গ্রহণ করতে হবে পাশাপাশি প্রয়োজনে অন্যান্য সংগঠনের সাথে টাইআপ রেখে আমাদের চলা দরকার।
সংগঠনের জেলা কমিটির কনভেনর ও সাংবাদিক এহসানুল হক বলেন, উত্তর ২৪ পরগনার প্রতিটি ব্লকে একটি করে কমিটি গঠন করতে পারলে সংগঠন কলেবরে বৃদ্ধি পাবে। পাশাপাশি সামাজিক কাজের জন্য  বৃক্ষরপণ  প্রোগ্রাম নেওয়া যেতে পারে এবং শিক্ষক দিবসে যে চারজন  আদর্শ শিক্ষক কে আমরা সংবর্ধিত  করবো ভাবছি সেই চারজনের মধ্যে একজন অমুসলিম শিক্ষক ও একজন মহিলা শিক্ষিকা থাকলে ভালো হয়। জেলা সম্পাদক রাকিবউদ্দিন পূর্বের বক্তাদের রেস টেনেই জেলা কমিটিকে আরও মজবুত করার কথা বলেন এবং জেলা কমিটিতে অন্তত 40 জন সদস্য সদস্যা থাকলে কাজ করতে সুবিধা হবে বলে মতামত দেন। আর বিশেষ করে সিরাতের মিডিয়া সেলের মাধ্যমে আমাদেরকে কর্মকান্ডকে বেশি বেশি করে প্রচার প্রসার করার পাশাপাশি  বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় কর্মকাণ্ডকে তুলে ধরা দরকার। 2021 এ MCQ আকারে প্রশ্ন উত্তর বই প্রকাশ করে শিক্ষার্থীদের দেওয়ার ব্যবস্থা করলে সিরাত ট্যালেণ্ট সার্চ এক্সাম   কর্মসূচী আরো ভালো ভাবে নেওয়া যাবে মতামত দেন। জেলা পর্যবেক্ষক শিক্ষক সুবিদ হাসান বলেন, রাজ্য জুড়ে সিরাতের যে, ট্যালেন্ট সার্চ এক্সাম অনুষ্ঠিত হয়  সেটাকে আরো ভালো করা দরকার,  নির্ভুল এবং নিখুঁত করার চেষ্টা করলে আমাদের গুড উইল বাড়ার পাশাপাশি বিশ্বাসযোগ্যতাও বাড়বে। এছাড়া তিনি বিভিন্ন অনুষ্ঠানকে সামনে রেখে  ব্যালেন্স করে মুসলিম  ও অমুসলিম ব্যক্তিকে অতিথি হিসেবে আমন্ত্রণ জানানোর মতামত দেন।



এদিন মিটিং এ উপস্থিত ছিলেন সিরাতের রাজ্য কমিটির সভাপতি সভাপতি, সমাজসেবী হাজি আকবর আলি সাহেব, সম্পাদক আবু সিদ্দিক খান, জেলা কমিটির হিসাবরক্ষক নাজমা খাতুন, সদস্যা রুখসোনা পারভীন, সদস্য আলাউদ্দিন গাজী, সাইফুদ্দিন মল্লিক প্রমুখ। 
হাজী আকবার আলি সাহেবের দোয়ার মাধ্যমে মিটিং শেষ করা হয়। 

#মিটিং এ যে সিদ্ধান্ত গুলি নেওয়া হয়#

১- আগামী ৫ ই সেপ্টেম্বর, বসিরহাট আলি মার্কেটের কমিউনিটি হলে বেলা ১১ টায় শিক্ষক দিবস উদযাপন অনুষ্ঠান করা হবে এবং ৪ জন আদর্শ শিক্ষককে সংবর্ধিত করা হবে তারমধ্যে একজন অমুসলিম শিক্ষক ও একজন মহিলা শিক্ষিকা থাকবেন।
২- গোটা একবছরে ব্লকে একটি করে কমিটি গঠন। 
৩- সদস্য সংগ্রহ করা
৪- বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি নেওয়া।
৫- শিক্ষার্থীদের সুবিধার্তে সিলেবাসের উপর MCQ টাইপ বই প্রকাশ করা হবে। উপস্থিত সকলে মিলে 
উক্ত কাজগুলির সমাধানের জন্য অধিকাংশ দায়িত্বভার সংগঠনের রাজ্য সম্পাদক, শিক্ষক আবু সিদ্দিক খানকে দেওয়া হয়।

0/Post a Comment/Comments

AB Banga News-এ খবর বা বিজ্ঞাপন দেওয়ার জন্য যোগাযোগ করুনঃ 9831738670 / 7003693038, অথবা E-mail করুনঃ banganews41@gmail.com