আদিবাসী সমাজকে এগিয়ে নিয়ে যেতে তিনদিনব্যাপী আদিবাসী মেলার আয়োজন করা হলো দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার গঙ্গারামপুরে,

বাবাই সূত্রধর,

 দক্ষিণ দিনাজপুর, ২৪ জানুয়ারি;




 আদিবাসী সমাজকে এগিয়ে নিয়ে যেতে তিনদিনব্যাপী আদিবাসী মেলার আয়োজন করা হলো দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার গঙ্গারামপুরের বাসুরিয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের দামোদরপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ময়দানে।


 প্রদীপ প্রজ্জ্বলনের মধ্য দিয়ে মেলার উদ্বোধন করেন গঙ্গারামপুর ব্লকের বিডিও, সহ বিশিষ্ঠ জনেরা।

আদিবাসী যুব সমাজকে ক্রীড়ার প্রতি উৎসাহ বাড়াতে এদিন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয় । বিজয়ীদের হাতে তুলে দেওয়া হয় পুরষ্কারও। 

 আদিবাসী মানুষদের নিজস্ব নাচ,গান,শিল্প ,সংস্কৃতির প্রসার,প্রদর্শন,এবং বিভিন্ন সরকারি প্রকল্পের সুবিধা প্রদান কে সামনে রেখে , আদিবাসী যুব কল্যাণ দপ্তর এর উদ্যোগে সারা রাজ্যের পাশাপাশি দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার গঙ্গারামপুর উন্নয়ন ব্লক ও পঞ্চায়েত সমিতির ব্যবস্থাপনায় গঙ্গারামপুর এর বাসুরিয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের দামোদর পুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ময়দানে তিনদিনব্যাপী আদিবাসী মেলার আয়োজন করা হয়।

প্রদীপ প্রজ্বলন এর মধ্য দিয়ে মেলার উদ্বোধন করেন ব্লকের বিডিও অঙ্কিত আগরওয়াল , এছাড়াও সেখানে উপস্থিত ছিলেন পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি কালীপদ সরকার,সহ সভাপতি সুকুমার মহন্ত, পূত্ত কর্মা দক্ষ নিকোলাস হেমরম,ব্লকের যুগ্ম বিডিও অর্ক মান্ডি,বাসুরিয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান মহেন্দ্র হেমরম,আদিবাসী যুব কল্যাণ দপ্তরের আধিকারিক সুকান্ত কুস্কু সহ অনেকেই ।

এদিন প্রথমেই অতিথিদের আদিবাসী নিত্য ও আদিবাসী সংস্কৃতির রীতি অনুসারে বরণ করে নেওয়া হয়।এরপর আদিবাসী মেলাকে কেন্দ্র করে বসা স্টল পরিদর্শন করেন অতিথি বর্গরা। 




আদিবাসী যুব সমাজকে ক্রীড়ার প্রতি উৎসাহ বাড়াতে এদিন বিভিন্ন ইভেন্টে ক্রীড়া প্রতিযোগিতা করানো হয়।

বিজয়ীদের হাতে তুলে দেওয়া হয় পুরষ্কারও। ব্লকের বিডিও অঙ্কিত আগরওয়াল জানিয়েছেন,শহরাঞ্চলে আদিবাসী নাম উঠলে পিছিয়ে পড়া মানুষ বলে গণ্য করা হয়।

তাই আদিবাসী সমাজকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য এমন মেলার আয়োজন করা হয়েছে। 

গঙ্গারামপুর পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি কালিপদ সরকার জানিয়েছে,রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে মানুষের কথা ভাবছেন।

 এমন মেলা অনুষ্ঠিত হওয়ায় আদিবাসী সমাজ এগিয়ে যাবে। 




গঙ্গারামপুর পঞ্চায়েত সমিতির পূর্ত কর্মাধ্যক্ষ নিকোলাস হেমরম জানিয়েছেন, আদিবাসী মানুষদের জন্য এমন মেলা অনুষ্ঠিত হওয়ায় ধন্যবাদ জানাই রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী কে।

0/Post a Comment/Comments

Previous Post Next Post
Contact for advertising : 9831738670