তিনদিন ধরে পানীয়জল অমিল হরিশ্চন্দ্রপুর এ,

মালদা ৩১ জানুয়ারি: 




গত ৩ দিন ধরে বন্ধ হরিশ্চন্দ্রপুর থানা হরিশ্চন্দ্রপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের পি এইচ ই জল প্রকল্পের জল-সরবরাহ। এই নিয়ে এলাকার বাসিন্দাদের মধ্যে ক্ষোভ দানা বাঁধতে শুরু করেছে। 

হরিশ্চন্দ্রপুর হাসপাতাল পাড়া এলাকার গীতা দাস, অনিতা দাস জানালেন বিগত তিনদিন ধরে তাদের পাড়ায় সরকারি জলের কলে পানীয় জল অমিল। 
কোথাও সুতোর মতো জল পড়ছে আবার কোথাও ঘোলা জল। 




যা খাবার অযোগ্য। জল খেয়ে বাড়ির শিশুরা অসুস্থ হয়ে পড়ছে। এর উপরে তিন দিন ধরে অমিল জল। 

এর ফলে তারা চরম অসুবিধায় পড়েছেন। উপায় না দেখে আশেপাশের বাড়ি থেকে তাদেরকে জল সংগ্রহ করতে হচ্ছে। 

তাদের ক্ষমতা নেই জল কিনে খাবার। পানীয় জলের জন্য পিএইচই র জলের উপর ভরসা করতে হয়। এই নিয়ে তারা স্থানীয় জল প্রকল্পের অফিসে অভিযোগ জানাতে গিয়ে কাউকে পাননি বলে তারা ক্ষোভ প্রকাশ করেন। 

কবে জল প্রকল্পের জল সরবরাহ স্বাভাবিক হবে এই চিন্তায় গীতা দেবি রা। এ প্রসঙ্গে হরিশ্চন্দ্রপুর জল প্রকল্পের কর্মচারী উৎপল দাস জানালেন হরিশ্চন্দ্রপুর বারদুয়ারী মোড়ে রাস্তার নিচে পাইপ ফেটে গেছে এরফলেই জল-সরবরাহ ব্যাঘাত ঘটেছে। 




পাইপ ঠিক করার কাজ যুদ্ধকালীন পরিস্থিতিতে চলছে তবে সঠিক জায়গায় পাইপ ফাটা খুঁজতে সময় লাগছে। আশা করা যাচ্ছে আজ বিকেলের মধ্যেই জল সরবরাহ স্বাভাবিক হয়ে যাবে।

 এ প্রসঙ্গে চাচল মহাকুমার পি এইচ ইর এসিস্ট্যান্ট ইঞ্জিনিয়ার পঙ্কজ কুমার রায় জানিয়েছেন হরিশ্চন্দ্রপুর জল প্রকল্পের পাইপ গুলি খুব পুরনো। 

এবং বেশিরভাগই পি ডাবলু ডি রাস্তার নিচে রয়েছে। রাস্তায় ভারী যানবাহনের ওভারলোডের কারণে রাস্তার নিচে থাকা পাইপ গুলিতে চাপ পড়ছে এর ফলে পাইপ গুলিতে ফাটল ধরছে। 

তবে ওই সমস্যার সমাধানে জন্য স্থানীয় কন্টাকটার কে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

আশা করা যাচ্ছে ওই এলাকায় বিকেলের মধ্যেই জল সরবরাহ স্বাভাবিক হয়ে যাবে

0/Post a Comment/Comments

Previous Post Next Post
Contact for advertising : 9831738670